সরকার ভূমি উন্নয়ন কর (ভূমির খাজনা) ব্যবস্থাপনা ডিজিটাল করার কার্যক্রম শুরু করেছে। সরকারি সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ৩০ জুন, ২০২১ এর পর থেকে প্রচলিত (ম্যানুয়াল) পদ্ধতিতে আর ভূমি উন্নয়ন কর আদায় করা হবে না। এর পরিবর্তে অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর আদায় করা হবে।

অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর আদায়ের ফলে ভূমি মালিকগণ ইউনিয়ন ভু‌মি অ‌ফি‌সে না গিয়ে অর্থাৎ ঘরে বসে অথবা ইউ‌নিয়ন ডি‌জিটাল সেন্টা‌রে কিংবা দেশের বাইরে বসেও ভূমি উন্নয়ন কর প্রদান এবং দাখিলা সংগ্রহ করতে পারবেন।

উপজেলার সকল ইউনিয়নে মৌজাওয়ারী ভূমি মালিকের তথ্য অনলাইনে এন্ট্রি দেওয়ার কার্যক্রম চলছে। এ প্রচেষ্টা সফল করার জন্য আপনাদের সহযোগিতা একান্তভাবে কাম্য।

ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ রশিদ । অনলাইন থেকে যে কপিটি ডাউনলোড করবেন

খাজনা আদায়ের রশিদ

অনলাইনে খাজনা পরিশোধে যে ডকুমেন্ট লাগবে । নিম্নলিখিত প্রমাণকসমূহ যথাঃ
১. খতিয়ানের কপি,
২. পূর্ববর্তী দাখিলার কপি,
৩. জাতীয় পরিচয়পত্র এবং
৪. মোবাইল নাম্বার;

সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন ডি‌জিটাল সেন্টা‌রে যোগাযোগ করে আপনার ভূমি মালিকানা সংক্রান্ত তথ্য অনলাইনে এন্ট্রি দেওয়া নিশ্চিত করার জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।অন্যথায় ভূমি উন্নয়ন কর প্রদানে জটিলতাসহ ভূমির মালিকানা সংক্রান্ত বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

এসংক্রান্ত যে কোন জিজ্ঞাসার জন্য আপনার সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা অথবা সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন।

সূত্র: জেলা প্রশাসন, কুমিল্লা

অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর প্রদান করা যাবে!

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

admin has 3001 posts and counting. See all posts by admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *