দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের এককালীন চিকিৎসা অনুদান সংক্রান্ত।

দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের এককালীন চিকিৎসা অনুদান প্রদান নির্দেশিকা, ২০২০-প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট্র।

অর্থের অভাবে শিক্ষার সুযোগ বঞ্চিত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের শিক্ষা নিশ্চিত করা প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের লক্ষ। বর্তমানে ট্রাস্টের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন ধরনের আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে। বিশেষ করে, দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের অর্থের অভাবে যাতে শিক্ষা কার্যক্রম বিঘ্নিত না হয় সে লক্ষ্যে আর্থিক অনুদান প্রদান করা হচ্ছে।

ব্যবস্থাপনা পরিচালক, প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টের একক স্বাক্ষরে এ তহবিল পরিচালিত হবে। আবেদন প্রাপ্তির পর যাচাই বাছাই করে উপযুক্ত বিবেচিত হলে শিক্ষার্থী প্রতি ১০ হাজার টাকা হতে ৫০ হাজার টাকা হারে এককালীন অনুদান প্রদান করা হবে।

উক্ত অনুদান অর্থ এফডিআরকৃত ২ (দুই) কোটি টাকার সুদ/লভ্যাংশ থেকে প্রদান করা হবে।

আর্থিক অনুদান প্রাপ্তির শর্তাবলী

ক) প্রজাতন্ত্রের বেসামরিক কর্মে নিয়োজিত সকল সরকারি আধা সরকারি স্বায়ত্তশাসিত দপ্তর ও সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ১৩-১০ গ্রেডের সকল কর্মচারীর সন্তান আর্থিক অনুদান প্রাপ্তির যোগ্য বিবেচিত হবে।

খ) অন্যান্য ক্ষেত্রে পিতা/মাতা/অভিভাবকের বাৎসরিক আয় দুইলক্ষ টাকার কম হতে হবে এবং

গ) দুর্ঘটনার প্রমাণে জেলা পর্যায়ে সিভিল সার্জন /সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসক/উপজেলা পর্যায়ে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা কর্তৃক গুরুতর আহত-এর সমর্থনে প্রত্যয়নকৃত শিক্ষার্থীর চিকিৎসা সনদ থাকতে হবে।

দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের এককালীন চিকিৎসা অনুদান প্রদান নির্দেশিকা, ২০২০ : ডাউনলোড

দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের এককালীন চিকিৎসা অনুদানের জন্য অনলাইনেই আবেদন করা যাবে: ক্লিক করুন

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

admin has 2958 posts and counting. See all posts by admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *