ভ্রমণ বিল তৈরির নিয়ম ২০২২ । প্রশিক্ষণ শেষে ভ্রমণ বিল তৈরি করবেন যেভাবে

ভ্রমণ বিল বা টিএ ডিএ বিল তৈরির প্রথম কাজ হচ্ছে ভ্রমণ বিবরণী বা বৃত্তান্ত তৈরি করা – ভ্রমণ বৃত্তান্ত তৈরির পর অনুমোদন করে নিতে হয়– ভ্রমণ বিল তৈরির নিয়ম ২০২২

ভ্রমণ বিল তৈরির নিয়ম ২০২২ – কোন ট্রেনিং বা ভ্রমণ করার পর নিচের দেওয়া ভ্রমণ বৃত্তান্ত তৈরি করে নিতে হবে। ভ্রমণ বৃত্তান্ত অবশ্যই ভ্রমণ আদেশ অনুসরণ করে তৈরি করতে হবে। ভ্রমণ আদেশের তারিখের বাইরে কোন তারিখ ভ্রমণ বিবরণীতে এন্ট্রি করা যাবে না। TA DA New form 2022 । ভ্রমণ বিল ফর্ম ডাউনলোড করুন

প্রথমেই আমরা বের করে নিবো রংপুর থেকে ঢাকার দূরত্ব কত? চলুন গুগল করি। দূরত্ব ২৯৮ কি:মি:। চলুন দেখে নিই আমরা কোন ক্যাটাগরিতে পড়ছি। যেহেতু গ্রেড ১১ তাই তৃতীয় ক্যাটাগরির কর্মচারী। সে হিসেবে দৈনিক ভাতা ঢাকার জন্য আসবে ৭০০ টাকা এবং সাথে ৩০% অতিরিক্ত ব্যয় বহুল এলাকার জন্য। ভ্রমণ ভাতা ২০০ কি: মি: এর তদুর্ধ্ব বা উপরে হওয়ার কারণে ক্যাটাগরি-৩ অনুসারে ৬ টাকা। যে কোন প্রকার যানবাহনেই যাতায়াত করুন কেন দূরত্বকে হার দিয়ে গুন করতে হবে।

এখন আমরা বিল হিসাব করবো। ২ দিন অবস্থানের জন্য অবস্থান ডি/এ বা দৈনিক ভাতা হবে ৭০০+৩০% = ৯১০ টাকা হারে ৯০০*২ = ১৮০০ টাকা। আগমন ও প্রস্থানের জন্য ১/২+১/২ আরও ১টি ডিএ পাবেন। তাহলে সর্বমোট ১৮০০+৯০০ = ২৭০০ টাকা। এখন দূরত্ব অনুসারে ভ্রমণ ভাতা ২৯৮*৬ = ১৭৮৮ টাকা করে আপ এবং ডাউন অর্থাৎ যাওয়া এবং আসার জন্য ১৭৮৮*২ = ৩,৫৭৬ টাকা। তাহলে সর্বমোট টিএ ডিএ বা ভ্রমণ ভাতা বিল হবে ২৭০০+৩৫৭৬ = ৬,২৭৬ টাকা। এভাবে ঢাকা যাতায়াত বা ট্রেনিং বাবদ ভ্রমণ বিল তৈরি করতে হবে। চলুন নিচের ভ্রমণ বৃত্তান্ত অনুসরণ করে হিসাব করি।

টিএ ডিএ বিল তৈরি করতে হবে নতুন নিয়মে / ১ লা অক্টোবর তারিখ হতে নতুন ভ্রমণ আদেশ কার্যকর হয়েছে

ভ্রমণ বিল তৈরি করতে হবে পুরাতন ফর্মেই। যদিও কিছু দিনের মধ্যে অনলাইনেই ভ্রমণ বিল তৈরি করা যাবে। তথ্য ইনপুট দিলে আইবাস++ অটো ভ্রমণ বিবরণী তৈরি করে দিবে।

ট্রেনিং শেষে ভ্রমণ বৃত্তান্ত

Caption: Travelling Statement Word File Download

ভ্রমণ বিল হিসাব করার নিয়ম ২০২২ । যেভাবে টিএ/ডিএ হিসাব করবেন।

  1. প্রথমে ধরি কর্মকর্তা ৯ গ্রেডের একজন ব্যক্তি। গুগল করে ঢাকা হতে টাঙ্গাইলের গন্তব্য স্থানের দূরত্ব বের করে নিতে হবে। যদিও এখানে দূরত্ব বের করে দেওয়া আছে।
  2. তাহলে ৯ম গ্রেড মানে হচ্ছে ক্যাটাগরি-২ তারি টিএ ও ডিএ সেই হিসেবে হবে।
  3. ডিএ আসবে ৮৭৫ টাকা। ঢাকায় হওয়ার কারণে ৩০% অতিরিক্ত ধরতে হবে। ৮৭৫+২৬২.৬ = ১১৩৭.৫০ টাকা। ১১৩৭.৫০*৪ = ৪৫৫০ টাকা।
  4. টিএ ধরতে হবে ক্যাটাগরি-২ অনুসারে ২০০ কি: মি: এর নিচে হওয়ায় ১৫ টাকা হারে। ১৫*৮৬ = ১২৯০ টাকা। আসা-যাওয়া হিসেবে ২৫৮০ টাকা।
  5. তাহলে মোট টিএ ডিএ হল ৭১৩০ টাকা মাত্র।

ভ্রমন বিল কি পুরাতন ফর্মেই হবে?

হ্যাঁ। পুরাতন ফর্মেই তৈরি করতে হবে। নতুন কোন ফর্ম এখনও প্রকাশ করা হয়। তাই কর্মকর্তা / কর্মচারীদের জন্য নির্ধারিত ফর্মে ভ্রমণ বিল তৈরি করতে হবে। ভ্রমণ বিধিমালা একই হলেও ভ্রমণ বিল তৈরির ফরম ভিন্ন। কর্মকর্তা বা গেজেটেড কর্মকর্তাদের জন্য একটি নির্ধারিত ফরম এবং নন-গেজেটেড কর্মচারীদের জন্য অন্য একটি ফরম। দুটি ফরমে অল্প কিছু তথ্য প্রদানের ভিন্নতা রয়েছে। ভ্রমণ বিল তৈরি নীতিমালা ও রুলস একই। TA DA Form Officer and Gazetted: PDF Download

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে [email protected] ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

2 thoughts on “ভ্রমণ বিল তৈরির নিয়ম ২০২২ । প্রশিক্ষণ শেষে ভ্রমণ বিল তৈরি করবেন যেভাবে

  • এক দিনে ভ্রমনে যেয়ে ঐদিনেই ফিরে আসলে ডিএ না উঠিয়ে শুধু টিএ উঠানো যাবে কিনা? সম্ভবত এরকম একটা নিয়ম আছে যে একই দিনে যেয়ে ফিরে আসলে ডিএ/টিএ যেকোন একটি প্রাপ্য হবে।

    যদি শুধু টিএ উঠানো যায় সেক্ষেত্রে দূরত্ব কি একসাথে যোগ হবে নাকি যাওয়া এবং আসা আলাদা হবে। যেমনঃ ধরা যাক আমি ৯ম গ্রেডের কর্মকর্তা। রংপুর থেকে পঞ্চগড় গিয়ে ঐদিনেই ফিরে আসলাম। রংপুর থেকে পঞ্চগড় দূরত্ব ১৩৫ কি.মি। যদি যাওয়া এবং আসা আলাদা বিবেচনা করা হয় তাহলে প্রতিবার দূরত্ব ১৫ টাকা হারে (১৩৫*১৫)+(১৩৫*১৫) টাকা হবে। আর একসাথে দূরত্ব যোগ হলে হবে (২৭০*১২) টাকা।

  • যাবে। শুধু ডিএ উঠানো যাবে তবে এক্ষেত্রে অফিস আদেশ জারি করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *