মুভমেন্ট পাস ছাড়া এলাকা ত্যাগ করা যাবে না।

বাংলাদেশ পুলিশের চলমান করোনা পরিস্থিতিতে জনগণের চলাচলের জন্য “মুভমেন্ট পাস ” অ্যাপটির পরীক্ষামূলক ব্যবহার শুধুমাত্র পুলিশ অফিসারদের পর্যায়ে সীমিত রাখা হয়েছে। অ্যাপটি এখনো নাগরিকদের জন্য উন্মুক্ত করা হয়নি। সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা থেকে বিরত থাকুন।

আগামীকাল থেকে ঢাকা থেকে বের হতে এবং ঢাকায় ঢুকতে হলে মুভমেন্ট পাশ লাগবে। চলমান পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ পুলিশ অনলাইনে আবেদনের মাধ্যমে যথোপযুক্ত কারণ দেখিয়ে বাইরে যাবার পারমিশন দিবে। আবেদনের ঠিকানা movementpass.police.gov.bd

উক্ত লিংকে ঢুকে মুভমেন্ট পাসের জন্য আবেদন করতে হবে। মুভমেন্ট পাস ক্লিক করে আপনার মোবাইল নাম্বারটি প্রবেশ করাতে হবে। অতঃপর আপনার মোবাইলে একটি ওটিপি চলে যাবে। ওটিপি প্রবেশ করালে আপনি পাস এর জন্য আবেদন করতে পারবেন।

মুভমেন্ট পাস এর জন্য যে তথ্যগুলো লাগবে?

১. যে থানা এলাকা থেকে যাবেন
২. যে থানা এলাকায় যাবেন
৩. আপনার নাম
৪. লিঙ্গ
৫. বয়স
৬. ভ্রমণের কারণ
৭. পাস ব্যবহারের তারিখ ও সময়
৮. পাশের মেয়াদ শেষের তারিখ ও সময়
৯. পরিচয় পত্র
১০. নিজস্ব গাড়ি কি
১১. আপনার ছবি

যে সকল কারণে আপনি বাইরে যেতে পারবেন:

১. মুদি মালামাল কেনাকাটা
২. কাঁচা বাজার
৩. ঔষধ ক্রয়
৪. চিকিৎসা
৫. চাকরি
৬. কৃষিকাজ
৭. পণ্য পরিবহন
৮. পণ্য সরবরাহ
৯. ত্রাণ বিতরণ
১০. পাইকারি/খুচরা ক্রয়
১১. পর্যটন
১২. মৃতদেহ সৎকার
১৩. ব্যবসা
১৪. অন্যান্য

পরিচয় পত্র হিসেবে কি কি ব্যবহার করা যাবে?


১. জাতীয় পরিচয় পত্র
২. ড্রাইভিং লাইসেন্স
৩. পাসপোর্ট
৪. জন্ম নিবন্ধন
৫. স্টুডেন্ট আইডি

আপনাকে প্রতিবার যাতায়াতের জন্য পাস নিতে হবে, একটি পাস একবার ব্যবহারযোগ্য। যাওয়া এবং আসার জন্য দুইটি আলাদা পাসের আবেদন করুন।

সঠিক ভাবে আবেদন করা হলে মুভমেন্ট পাস পেয়ে যাবেন। পুলিশ চেকপোস্টে এ উক্ত পাসটি দেখাবেন।

আপনার পরিবার ও আপনজন যেন করোনাভাইরাস এর ভয়াবহতা থেকে মুক্ত থাকে সে কারণে আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে সকলকে আইন মেনে ভ্রমণ করার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।

admin

আমার ব্লগের কোন কন্টেন্ট সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে বা জানাতে ইমেইল করতে পারেন admin@bdservicerules.info ঠিকানায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.