Sanchayapatra Encashment Process । সঞ্চয়পত্র মেয়াদ উত্তীর্ণ হলে নগদায়ন করার নিয়ম ২০২২

ব্যাংক অথবা ডাকঘর যেখান থেকেই সঞ্চয়পত্র ক্রয় করুন না কেন বর্তমানে আপনাকে একটি অনলাইন প্রিন্ট কপি দিবে এবং নমিনির ছবি ও আপনার ছবি সহ ম্যানুয়াল কপি দিবে – Sanchayapatra Encashment Process which is applied to Bank or Post office– সঞ্চয়পত্র মেয়াদ উত্তীর্ণ হলে নগদায়ন করার নিয়ম ২০২২

সঞ্চয়পত্র নগদায়ন ২০২২ – আপনি মেয়াদ শেষে বা মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার পূর্বে সঞ্চয়পত্রের টাকা ক্যাশ করতে সাদা কাগজে আবেদন করুন এবং আবেদনের সাথে এনআইডি’র কপি, সঞ্চয়পত্র রেজিস্ট্রেশন কপি এবং ক্রয়ের অনলাইন কপি যুক্ত করে দিন। সঞ্চয়পত্র বিক্রয়কেন্দ্র পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

যদি ডাকঘরে সঞ্চয়পত্র ক্রয় করে থাকেন তবে সঞ্চয়পত্র নিবন্ধন কপি এবং চেক বই নিয়ে সহকারী পোস্ট মাস্টার এর নিকট আবেদন সহ বা আবেদন ছাড়া (মেয়াদ উর্ত্তীণের ক্ষেত্রে) ম্যানুয়ালী যোগাযোগ করুন। অনুমিত বা স্বাক্ষরের মাধ্যমে অনুমোদন দিয়ে আপনি সঞ্চয়পত্র নগদায়ন বা ক্যাশ অফিসারের নিকট জমা দিবেন তিনি পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণ করবেন। সঞ্চয়পত্র ক্রয়ের সর্বোচ্চ সীমা ২০২২

সোনালী ব্যাংকে সাত লাখ টাকা পারিবারিক সঞ্চয়পত্র করা হয়েছে। এখান থেকে আমি দু’ লাখ টাকা উঠাতে চাই। উঠানো যাবে কি? সঞ্চয় পত্র ভেঙে, আবার ৫ লাখ টাকার সঞ্চয় পত্র এর জন্য কাগজপত্র নতুন করে জমা দিতে হবে। নতুন করে আবার ৫ লাখ টাকার ব্যাংক চেক, টিন সার্টিফিকেট, জমা দিতে হবে অথবা আপনি আংশিক নগদায়ন করতে পারবেন। মেয়াদপূর্তির পূর্বে সঞ্চয়পত্র সম্পূর্ণ/ আংশিক নগদায়ন সংক্রান্ত আবেদনপত্র নমুনা।

সঞ্চয়পত্র মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে কিনা কিভাবে বুঝবেন? / সঞ্চয়পত্র মেয়াদোত্তীর্ণ ২০২২

পরিবার সঞ্চয়পত্র ৫ বছর মেয়াদী হয়ে থাকে। সঞ্চয়পত্র নিবন্ধন নম্বর বা ইস্যুর তারিখ হতে ৫ বছর গণনা করতে হয়। নিচে ১০/৮/২০১৭ খ্রি: তারিখে ক্রয় করা সঞ্চয়পত্রের মেয়াদ চলতি আগস্ট মাসে পূর্তি হয়েছে। তাই এ মাসেই নগদায়ন করতে হবে। একমাস বেশি টাকা ব্যাংক বা পোস্ট অফিসে পড়ে থাকলে আপনাকে একটি টাকাও বেশি দেওয়া হবে না। তাই মেয়াদ পূর্তি হলেই দ্রুত নগদায়ন করে পুন: বিনিয়োগ করুন।

সঞ্চয়পত্র মেয়াদোত্তীর্ণ ২০২২

Caption: Sanchaypatro post office copy / সঞ্চয়পত্র নগদায়নের সময় রেজিস্ট্রেশন কপি এবং টাকা উত্তোলনের বই বা চেকের মুড়ি সহ চেক বইটি জমা দিতে হবে। চেক বইয়ের অপর পৃষ্ঠায় থাকা চূড়ান্ত উত্তোলনের ঘরে স্বাক্ষর করতে হবে।

সঞ্চয়পত্র ম্যাচিউর্ড হওয়ার পূর্বেই ভাঙ্গানো যায় কি?

  • আমরা যারা সঞ্চয়পত্র করে থাকি তারা একটি নির্দিষ্ট পরিমান টাকা নির্দিষ্ট বছরের জন্য রেখে থাকি।
  • স্কীম অনুযায়ী এটা হতে পারে ৩ বছর বা ৫ বছর। সঞ্চয়পত্র করার পর মেয়াদপূর্তির পূর্বেই আমাদের অনেক সময় টাকার প্রয়োজন হতে পারে।
  • যেহেতু টাকার মালিক আপনি তাই প্রয়োজনে যে কোন সময় সঞ্চয়পত্র ভাঙ্গানোর সুযোগ আপনি পাবেন এবং
  • সরকার সে সুযোগ দিয়ে রেখেছে।
  • অর্থাৎ আপনি চাইলে যেকোন সময় আপনার প্রয়োজনে সঞ্চয়পত্র ভাঙ্গাতে পারবেন।

আংশিক টাকার দরকার হলে কি সঞ্চয়পত্র আংশিক ভাঙ্গাবেন নাকি সম্পূর্ণ ভাঙ্গাবেন?

এক্ষেত্রে, সবচেয়ে সহজ পদ্ধতি হলো আপনি পুরো সঞ্চয়পত্র ভেঙে ফেলবেন এবং আপনার যে অর্থ প্রয়োজন তা রেখে বাকি টাকার উপর পুনরায় সঞ্চয়পত্র করবেন। এর প্রধান কারন হলো, হিসাব নিকাশ সহজ করা। অন্যদিকে আপনি সঞ্চয় পত্র ভাঙ্গানোর পর সঞ্চয়পত্র সাথে সাথেই করা যায় এখানে কোন বাধ্যবাধকতা নেই।

তবে মনে রাখতে হবে, টাকার রাখার পর যে হারে মুনাফা পেয়েছেন মেয়াদ পূর্তির পূর্বে নগদায়ন করার কারনে ঐ হারে আর সুদ বা মুনাফা পাবেন না। এখন আপনি বলতে পারেন, আমি তো এক্ষেত্রে ইতোমধ্যে হাতে টাকা পেয়েছি। মনে রাখতে হবে আপনি যে পরিমান টাকা ইতোমধ্যে সুদ হিসেবে পেয়েছেন তা আসল ( Principal) টাকা হতে কর্তন করে বাকি টাকা আপনার ব্যাংক হিসাবে EFT এর মাধ্যমে প্রদান করা হবে।

সঞ্চয়পত্র আংশিক ভাঙ্গানো যাবে কি?

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.