ভ্রমণ ভাতার প্রকারভেদ: যাতায়াত ভাতা, মাইল ভিত্তিক ভাতা।

ভ্রমণ ভাতা এক ধরনের ক্ষতিপূরণ ভাতা। কোন সরকারি কর্মচারীকে বিশেষ অবস্থায় দায়িত্ব পালনের সময় প্রয়োজনীয় ব্যক্তিগত খরচ নির্বাহের নিমিত্ত মঞ্জুরীকৃত ভাতাকে ক্ষতিপূরণ ভাতা বলা হয়। যখন কোন সরকারি কর্মচারী সরকারি কাজ সম্পাদনে ব্যক্তিগতভাবে অতিরিক্ত খরচের সম্মুখীণ হয় তখন এই ক্ষতিপূরণ ভাতা দেওয়া হয়। এই ভাতা এস, আর এবং বি,এস,আর এর দ্বিতীয় খন্ড এবং সরকার কর্তৃক সময়ে সময়ে প্রণীত নিয়ম-বিধি দ্বারা নিয়ন্ত্রিত।

সরকারি কর্মচারীগণ বিভিন্ন পরিস্থিতিতে যে সব ভ্রমণ ভাতা গ্রহণ করিতে পারে তাহাদিগকে পাঁচ ভাগে বিভক্ত করা যেতে পারে। নিচে এ বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।

১। স্থায়ী ভ্রমণ ভাতা (Permanent Travelling Allowance): যে সমস্ত সরকারি কর্মচারীর দায়িত্ব পালনের জন্য ব্যাপকভাবে ভ্রমণ করিতে হয় সেসব কর্মচারীকে কর্তৃপক্ষ স্থায়ী ভ্রমণ ভাতা মঞ্জুর করিতে পারেন। এই ভাতা বাবদ নির্দিষ্ট অঙ্কের একটি মাসিক ভাতা সংশ্লিষ্ট কর্মচারীগণ সারা বৎসর বেতনের সাহিত পাইয়া থাকে। এই ভাতার জন্য পৃথক ভাতা বিল দাখিল করিতে হয় না। [বিএসআর-২ বিধি ৫৫]

২। দৈনিক ভাতা (Daily Allowance): একজন সরকারি কর্মচারী সদর দপ্তর হইতে বাহিরে অবস্থানের প্রতিদিনের জন্য নির্দিষ্ট হারে যে ভাতা প্রাপ্য হন তাহাকে দৈনিক ভাতা বলা হয়। সরকারি কাজে সদর দপ্তর হইতে বাহিরে অবস্থানের ফলে সরকারি কর্মচারী কর্তৃক ব্যয়িত দৈনিক সাধারণ খরচ মিটানো এই ভাতা প্রদানের উদ্দেশ্য। সরকারি কর্মচারী যে শ্রেণীর অন্তর্ভুক্ত তিনি তাহার বেতনের উপর ভিত্তি করিয়া সেই শ্রেণীর জন্য দৈনিক ভাতা পাইবেন। [বিএসআর-২ বিধি-৫৫]

৩। যাতায়াত ও অশ্ব ভাতা (Conveyance of Horse Allowance): যে সকল কর্মচারীকে সদর দপ্তর হইতে ৫ মাইল দূরত্বের মধ্যে সরকারি কাজে ব্যাপক ভ্রমণ করিতে হয় তাহারা ভ্রমনভাতা পান না। তাহাদিগকে মাসিক হারে যাতায়াত ভাতা প্রদান করা হয়। ইহা ব্যতীত কোন কর্মচারী তাহার নিজ দায়িত্বে থাকা গাড়িঘোড়া কিংবা অন্য কোন যানবাহন এক স্থান হইতে অন্য স্থানে নিতে হইলে তিনি পরিবহনের প্রকৃত খরচ পাইবেন। উহাই যানবাহন, যাতায়াত অথবা অশ্বভাতা। ইহা সারা বৎসরই গ্রহণ করা যায়। সদর দপ্তর হইতে অনুপস্থিতির জন্য বাতিল হয় না। [বিএসআর-২ বিধি-২৬]

৪। মাইল ভিত্তিক ভাতা (Mileage Allowance): কোন সরকারি কর্মচারী সরকারি কাজে নির্দিষ্ট ভ্রমণের খরচ মিটানোর জন্য ভ্রমণকৃত দূরত্বের ভিত্তিতে যে ভাতা প্রাপ্য হন উহাকে মাইলভিত্তিক ভাতা বলা হয়।

৫। ভ্রমণের প্রকৃত খরচ (Actual Cost of Travelling) : উপযুক্ত কর্তৃপক্ষ কোন কর্মচারীকে বিশেষ কোন সরকারি কাজে অশ্ব, মটর গাড়ি, রিক্সা বেবীটেক্সী কিংবা অপর কোন যানবাহনে কোথাও যাওয়ার নির্দেশ প্রদান করিলে উক্ত কর্মচারী যানবাহনের ভাতা বাবদ প্রকৃত খরচ প্রাপ্য হন। এইরূপ খরচকে ভ্রমণের প্রকৃত খরচ বলা হয়। [বিএসআর-২, বিধি-৮৪]

admin

আমার ব্লগের কোন কন্টেন্ট সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে বা জানাতে ইমেইল করতে পারেন admin@bdservicerules.info ঠিকানায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.