বাংলাদেশের দ্বাদশ নির্বাচনের পর মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রী নিয়োগ প্রদান করা হয়েছে এবং ৬জন উপদেষ্টাকে নিয়োগ প্রদান করা হয়েছে– প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা তালিকা ২০২৪

মন্ত্রী এবং উপদেষ্টা নিয়োগ দেন কে? – গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী রুলস অব বিজনেস, ১৯৯৬-এর রুল ৩বি(১)-এ প্রদত্ত ক্ষমতাবলে অদ্য ৩০ পৌষ ১৪৩০/ ১১ জানুয়ারি ২০২৪ তারিখে ৬ জন ব্যক্তিবর্গকে রাষ্ট্রপতির পক্ষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা পদে নিয়োগদান করেছেন। উপদেষ্টাগণ মূলত মন্ত্রিপরিষদ সভায়র বাহিরে নিয়োগ প্রদান করা হয়।

উপদেষ্টাগণ বেতন ভাতাদি কেমন পাবেন? উপদেষ্টা পদে অধিষ্ঠিত থাকাকালীন তাঁরা মন্ত্রীর পদমর্যাদা, বেতন-ভাতাদি ও আনুষঙ্গিক সুযোগ-সুবিধা প্রাপ্য হবেন। রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রীদের বেতন ভাতা বাড়াতে পৃথক তিনটি বিল সংসদে পাশ হয়। এতে তাদের বেতন-ভাতা প্রায় দ্বিগুন করার প্রস্তাব করা হয়েছিল। বিলে রাষ্ট্রপতির নতুন বেতন এক লাখ ২০ হাজার টাকা, প্রধানমন্ত্রীর বেতন এক লাখ ১৫ হাজার, মন্ত্রীর বেতন এক লাখ পাঁচ হাজার, প্রতিমন্ত্রীর বেতন ৯২ হাজার এবং উপমন্ত্রীর বেতন ৮৬ হাজার ৫০০ টাকা করা হয়।

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতির বেতন কত? – দ্য প্রাইম মিনিস্টারস (রেমুনারেশেন অ্যান্ড প্রিভিলেজ) (অ্যামেন্ডমেন্ট) বিল, ২০১৬– The best Looking man in প্রধানমন্ত্রীর বেতন মাসে এক লাখ ১৫ হাজার। মাসিক বাড়ি ভাড়া এক লাখ টাকা। প্রধানমন্ত্রীর দৈনিক ভাতা তিন হাজার টাকা।বর্তমানে বাংলাদেশে রাষ্ট্রপতির মূল বেতন মাসে এক লাখ ২০ হাজার টাকা।

প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা ২০২৪ । প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা হিসেবে সালমান এফ. রহমানসহ অনেকেই রয়েছে

প্রধানমন্ত্রীর একক সিদ্ধান্তে উপদেষ্টাগণ পরামর্শ প্রদান করে থাকেন।

Caption: Order for Prime Minister’s Advisors

নিবার্চন ২০২৪ । প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা হলেন যারা

  • ১) ড. মসিউর রহমান
  • ২) ড. গওহর রিজভী
  • ৩) ডঃ তৌফিক-ই-এলাহী চৌধুরী
  • ৪) জনাব সালমান ফজলুর রহমান
  • ৫) জনাব কামাল আব্দুল নাসের চৌধুরী
  • (৬) মেজর জেনারেল (অবঃ) তারিক আহমেদ সিদ্দিক

বাংলাদেশের একজন প্রতিমন্ত্রীর যে সকল সু্যোগ সুবিধা পান?

মেয়রগণও এখন মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর সুবিধা পাবেন –দৈনিক ভাতা দেড় হাজার টাকা। প্রতিমন্ত্রীর নিয়ামক ভাতা ৭ হাজার ৫০০ টাকা। স্বেচ্ছাধীন তহবিল সাড়ে ৭ লাখ টাকা। মোবাইল ফোন কেনার জন্য ৭৫ হাজার টাকা বিনা ভাড়ায় সরকারি বাসভবন গ্যাস, বিদ্যুৎ, পানি, টেলিফোনসহ ভবনটির যাবতীয় রক্ষণাবেক্ষণ সরকার বহন করবে। সরকারি বাসায় সর্বোচ্চ চার লাখ টাকা মূল্যের আসবাবপত্র। সরকারি বাসায় না থাকলে বাড়ি ভাড়া বাবদ ৭০ হাজার টাকা, সেই সঙ্গে গ্যাস, বিদ্যুৎ, পানি, টেলিফোনসহ সব ধরণের সেবা খাতের বিল ও বাড়ি ব্যবস্থাপনা খরচ।

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

admin has 2981 posts and counting. See all posts by admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *