হিসাব মহানিয়ন্ত্রক এর কার্যালয়ের গত ০৯/১২/২০১৯ খ্রি: তারিখের ০৭.০৩.০০০০.০০৩.৩৮.৪১৯.১৬-৫০২ নম্বর স্মারকের মাধ্য সোনালি ব্যাংক এর প্রধান কার্যালয়কে উপজেলা পর্যায়ে কোন নির্দিষ্ট অর্থ বছরের দাবী জুন মাসের ৩০ তারিখের মধ্যে পরিশোধের আদেশ বাস্তবায়ন করতে অনুরোধ জানানো হয়েছে।

উপজেলা পর্যায়ে চেক ব্যবস্থা প্রবর্তিত না হওয়ায় বিলে পে-অর্ডারের মাধ্যমে অনলাইন অ্যাডভাইস প্রদান করা হয়। নির্দিষ্টকরণ আইন অনুযায়ী কোন নির্দিষ্ট অর্থ বছরের দাবী জুন মাসের ৩০ তারিখের মধ্যে পরিশোধযোগ্য। এ ক্ষেত্রে হিসাব রক্ষণ অফিস লক্ষ্য করছে যে,, কোন কোন ক্ষেত্রে জুন মাসের ৩০ পরবর্তী কার্য দিবসেও সোনালী ব্যাংক হতে বিল পরিশোধ করা হচ্ছে যা সুষ্ঠু আর্থিক ব্যবস্থার অন্তরায় বলে পত্রে উল্লেখ করা হয়েছে। এরূপ দাবী যাবে পরিবর্তিতে আর পরিশোধ না করা করা হয় তা জানিয়ে দেয়া হয়েছে। যদি পরিশোধ করা হয় সংশ্লিষ্ট ব্যাংক তার জন্য দায়ী থাকবে বলে জানো হয়।

এমতাবস্থায় সোনালী ব্যাংকের প্রধান কার্যালয় হতে উপজেলা পর্যায়ের সকল ট্রেজারি শাখা সমূহকে কোন নির্দিষ্ট অর্থবছরের দাবী জুন মাসের ৩০ তারিখের মধ্যে অত্যাবশ্যকীয় ভাবে পরিশোধের বিষয়ে আদেশ জারী করার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হয়েছে।

প্রশ্নোত্তর:

  • প্রশ্ন: তাহলে বকেয়া বিল কি আর পাশ হবে না?
  • উত্তর: না। বকেয়া আনুষাংঙ্গিক বিল আর পাশ হবে না।
  • প্রশ্ন: ৩০ জুন ইস্যু করা চেক কি জুলাই ১ তারিখে পরিশোধিত হবে না ?
  • উত্তর: না। হবে না।

এ সংক্রান্ত অতিরিক্ত হিসাব মহানিয়ন্ত্রক (হিসাব ও পদ্ধতি) এর মোহাম্মদ মমিনুল হক ভূঁইয়া স্বাক্ষরিত পত্রটি PDF কপি যুক্ত করা হলো: ডাউনলোড

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

admin has 3010 posts and counting. See all posts by admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *