সরকারি কাজে বিদেশ ভ্রমণের ক্ষেত্রে সরকার নতুন কোন আদেশ জারি না করা পর্যন্ত বৈদেশিক মুদ্রা ব্যয়ে ভ্রমণ করা যাবে না – সরকারি কাজে বিদেশ ভ্রমণ নির্দেশনা

বৈদেশিক মুদ্রা কি? –সাধারণত শক্তিশালী বা অনমনীয় মুদ্রা যা আন্তর্জাতিক বাজারে সহজে বিনিময়যোগ্য (যেমন মার্কিন ডলার, ব্রিটিশ পাউণ্ড, ইউরো, ইয়েন, ইত্যাদি), সেটিতেই বৈদেশিক মুদ্রার মজুদ গড়ে তোলা হয়। কোন দেশ স্বীয় দেশেরই কোন ব্যাংকে বা কোন বিদেশে অবস্থিত ব্যাংকে বৈদেশিক মুদ্রার মজুদ সংরক্ষণ করতে পারে।

বর্তমান বৈশ্বিক অর্থনৈতিক অবস্থা বিবেচনায় কৃচ্ছ্রসাধনের লক্ষ্যে নির্দেশক্রমে জানানো যাচ্ছে যে,“সরকারি কাজে বিদেশ ভ্রমণকালে বৈদেশিক মুদ্রায় প্রাপ্য ভ্রমণ ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা” সংক্রান্ত অর্থ বিভাগের ০৯ অক্টোবর ২০১২ তারিখের অম/অবি/ব্যঃনিঃ-২/২(১৯)/২০০০-০৪/অংশ-১/২২১(১০০০) নং আদেশের ২১(ক) অনুচ্ছেদে বর্ণিত সরকারি খরচে আকাশপথে বিদেশে প্রথম শ্রেণিতে ভ্রমণ পরবর্তী আদেশ না দেওয়া পর্যন্ত স্থগিত থাকবে। প্রথম শ্রেণির পরিবর্তে বিজনেস/ক্লাব/এক্সিকিউটিভ শ্রেণিতে ভ্রমণ করা যাবে।

কৃচ্ছ্রতা করে সরকার কেমন অর্থ সাশ্রয় করছে? চলতি ২০২৩ অর্থবছরের শুরু থেকে সরকারের কৃচ্ছ্রসাধনের নীতিতে এ পর্যন্ত সরকারি ব্যয়ে ১৫,০০০ কোটি টাকা সাশ্রয় হয়েছে। বুধবার অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অর্থ, মুদ্রা ও বিনিময় হার সংক্রান্ত কো-অর্ডিনেশন কাউন্সিলের​​​​ সভায় এ তথ্য তুলে ধরে অর্থ বিভাগ। এই অর্থের মধ্যে সরকারি চাকরিজীবীদের বেতন-ভাতা খাত থেকে সাশ্রয় হয়েছে ১,০৯৩ কোটি টাকা। এছাড়া, পণ্য ও সেবাসহ পূর্ত কাজ এবং শেয়ার ও ইক্যুইটিতে বিনিয়োগের লাগাম টেনে সাশ্রয় হয়েছে প্রায় ১৪,০০০ কোটি টাকা।

রিচার্জ বাচাতে কৃচ্ছতা সাধন / ডলার ব্যবহার এড়াতে সরকারি বিভিন্ন নির্দেশনা জারি করা হয়েছে।

কৃচ্ছ্রসাধন কি? কৃচ্ছ্রসাধন, কৃচ্ছ্রসাধনা–বি. অত্যন্ত কষ্টসাধ্য ব্রত বা সাধনা।

সরকারি খরচে আকাশপথে বিদেশে প্রথম শ্রেণিতে ভ্রমণ স্থগিতকরণ PDF Download

ডলার বা রিজার্ভ সাশ্রয়ে নির্দেশনা । ভ্রমণ, জ্বালানি ও ক্রয়ে কৃচ্ছতা সাধনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে

  1. জ্বালানি তেলে ২০% সাশ্রয় করছে।
  2. বিদ্যুৎ ব্যবহারে ২৫% সাশ্রয় করছে।
  3. বৈদেশিক ভ্রমন স্থগিত।
  4. অভ্যন্তরীন ভ্রমনে কঠোরতা অবলম্বন।
  5. আসবাবপত্র ক্রয়ে ২০% এবং আপ্যায়নে ২০% সাশ্রয় সহ বিভিন্ন বিষয়ে সাশ্রয়ের চেষ্টা করা হচ্ছে।
  6. গাড়ি ক্রয় বন্ধ।

বিদ্যুৎ খাতে কত ব্যয় করা যাবে?

‘৩১১১১১৩-বিদ্যুৎ’ খাতে বরাদ্দকৃত অর্থের সর্বোচ্চ ৭৫% ব্যয় করা যাবে। ‘3231301-প্রশিক্ষণ’ খাতে (প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান ব্যতীত) বরাদ্দকৃত অর্থের সর্বোচ্চ ৫০% ব্যয় করা যাবে; এবং ‘3243101-পেট্রোল, ওয়েল ও লুব্রিকেন্ট’ ও ‘৩২৪৩১০২-গ্যাস ও জ্বালানি খাতে বরাদ্দকৃত অর্থের সর্বোচ্চ ৮০% ব্যয় করা যাবে।

জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতে সাশ্রয় । বিদ্যুৎ খাতে ২৫% ব্যয় হ্রাসের নির্দেশনা রয়েছে

admin

আমি একজন সরকারী চাকরিজীবি। দীর্ঘ ৮ বছর যাবৎ চাকুরির সুবাদে সরকারি চাকরি বিধি বিধান নিয়ে পড়াশুনা করছি। বিএসআর ব্লগে সরকারি আদেশ, গেজেট, প্রজ্ঞাপন ও পরিপত্র পোস্ট করা হয়। এ ব্লগের কোন পোস্ট নিয়ে বিস্তারিত জানতে admin@bdservicerules.info ঠিকানায় মেইল করতে পারেন।

admin has 3002 posts and counting. See all posts by admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *