আবারও বাড়ছে সরকারী চাকিরজীবীদের বেতন ভাতা!

২০১৭ সালে মূল্যস্ফিতির সাথে সামঞ্জস্য রেখে সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বেতন বৃদ্ধির বিষয়ে কমিটি করে দেওয়া হয়েছিল। অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে যে আবারও বর্তমান বাজার ও মূল্য স্ফিতির কথা বিবেচনায় রেখে কমিটি বেতন বৃদ্ধির সুপারিশ করেছে। এ বছরেই কার্যকর হতে পারে সুপারিশটি।

সুপারিশে যা রয়েছে:

  • পুনরায় পে স্কেল দেওয়া হচ্ছে না।
  • ২৫% পর্যন্ত বেতন বৃদ্ধি করা যেতে পারে।
  • প্রবৃদ্ধির সাথে যুক্তিযুক্ত বেতন ভাতাদি রাখতেই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।
  • যাতায়াত ভাতা ও টিফিন ভাতাও যুগোপযোগী করার বিষয়টি রয়েছে।
মূল্যস্ফিতি সমন্বয়ের জন্য এই বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব তৈরি করা হয়েছে। প্রস্তাবটি প্রথমে মন্ত্রসভার অনুমোদনের প্রয়োজন পড়বে। অনুমোদন পেলে আগামী ১লা জুলাইতে হতেই কার্যকর ফলে ১৩ লাখ সরকারি চাকুরিজীবী বর্ধিত হারে বেতন ভাতা পাবেন।
উল্লেখ্য যে, পে স্কেল ২০১৫ তে ৯১-১০১ শতাংশ  পর্যন্ত বেতন বৃদ্ধি করা হয়েছিল।  মূল বেতনের সাথে বাড়ানো হয়েছিল বাড়ি ভাড়া, চিকিৎসা ভাতা, উৎসব ভাতাসহ অন্যান্য ভাতা। 
পে-স্কেল ২০১৫ ঘোষনার পরই জানানো হয়েছিল এটি একটি স্থায়ী পে কমিশন। নতুন কোন পে-স্কেল আর প্রদান করা হবে না।
Avatar

admin

আমি একজন সরকারি চাকরিজীবী। ভালবাসি চাকরি সংক্রান্ত বিধি বিধান জানতে ও অন্যকে জানাতে। আমার ব্লগের কোন কন্টেন্ট সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে বা জানাতে ইমেইল করতে পারেন alaminmia.tangail@gmail.com ঠিকানায়। ধন্যবাদ আপনাকে ওয়েবসাইটটি ভিজিট করার জন্য।

2 thoughts on “আবারও বাড়ছে সরকারী চাকিরজীবীদের বেতন ভাতা!

  • Avatar
    09/03/2019 at 3:42 pm
    Permalink

    That will be fully wrong decision , govt also should be thinking about private sector employee and employer issue

  • Avatar
    29/11/2019 at 10:28 pm
    Permalink

    Outsorcing er jonno kichu koren

Leave a Reply

Your email address will not be published.