বিনা বেতনে ছুটিতে থাকাকালীন সময় ইনক্রিমেন্ট সুবিধা পাবেন না।

কোন কর্মচারীর নির্দিষ্ট সময়ের জন্য বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি স্থগিতাদেশ এবং বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুরীর ক্ষেত্রে চাকরি (বেতন ও ভাতাদি) আদেশ, ২০১৫ এর আওতায় বার্ষিক বর্ধিত বেতনের তারিখ নির্ধারনী আদেশ।

সার সংক্ষেপ:

  • বিভাগীয় মামলার শাস্তির মেয়াদকালীন বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি বন্ধ থাকবে।
  • বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুরী প্রদানকৃত সময়ের জন্য বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি সুবিধা প্রাপ্য হবেন না।

অর্থ মন্ত্রণালয়ের ২৫-০৯-২০১৮ খি্র: তারিখের ০৭.০০.০০০০.১৬১.০০.০০২.১৬(অংশ-১)-৩১৬ নম্বর পরিপত্রের মাধ্যমে কোন কর্মচারী নির্দিষ্ট সময়ের জন্য বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি স্থগিতাদেশ এবং বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুরীর ক্ষেত্রে চাকরি (বেতন ও ভাতাদি) ২০১৫ এর আওতায় বার্ষিক বর্ধিত বেতনের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। 

১। কোন কর্মচারীকে বিভাগীয় মামলা/শৃংঙ্খলা পরিপন্থী আচরণের জন্য উপযুক্ত কর্তৃপক্ষ কর্তৃক নির্দিষ্ট সময়ের জন্য বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি স্থাগিতাদেশ প্রদান করলে তা কার্যকর করার ক্ষেত্রে নিম্নরূপ পদ্ধতি অনুসরণ করতে হবে।

ক) বেতন বৃদ্ধি স্থগিতের মেয়াদ এক বা একাধিক পূর্ণ বছর হলে পরবর্তী ১ জুলাই তারিখ থেকে দন্ডাদেশে উল্লিখিত সংখ্যক বছর তিনি বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি প্রাপ্য হবেন না;

খ) বেতন বৃদ্ধি স্থগিতাদেশের মেয়াদ এক বছরের অংশ বিশেষ হলে পরবর্তী ০১ জুলাই তারিখে তাঁর বার্ষিক বেতন বৃদ্ধিসহ বেতন নির্ধারণ করা হবে। তবে, ০১ জুলাই থেকে স্থগিতাদেশে উল্লিখিত মেয়াদের সমপিরমাণ সময় তিনি এই বার্ষিক বেতন বৃদ্ধির আর্থিক সুবিধা প্রাপ্য হবেন না এবং স্থগিতাদেশের নির্ধারিত মেয়াদ অতিক্রান্ত হবার পর বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি কার্যকরর হবে।

২। বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুরীর কারণে বর্ধিত বেতনের তারিখ নির্ধারণে নিম্নরূপ পদ্ধতি অনুসরণীয় হবে;

ক) কোন কর্মচারীর অনুকুলে অর্থ বছরের আংশিক সময় বিনা বেতনের ছুটি মঞ্জুর করা হলে পরবর্তী ০১ জুলাই তারিখে নিয়মিত বার্ষিক বেতন বৃদ্ধিসহ তাঁর বেতন নির্ধারিত হবে; তবে, যতদিন সময় বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুর করা হয়েছে, তিনি ততদিনের বার্ষিক বেতন বৃদ্ধির আর্থিক সুবিধা প্রাপ্য হবেন না;

খ) বিনা বেতনের ছুটি মঞ্জুরের সময় পূর্ণ এক বছর বা তদুর্ধ্ব হলে প্রতি পূর্ণ বছরের জন্য ১ বছর বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি প্রাপ্য হবেন না এবং বছরের আংশিক সময়ের জন্য উপরের ২(ক) নং ক্রমিকের পদ্ধতি অনুসরণ করতে হবে।

উদাহরণ: কোন কর্মচারীর অনুকুলে কোন অর্থ বছরের ৫০ দিন বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুর করা হলে পরবর্তী ০১ জুলাই তারিখে বার্ষিক বর্ধিত বেতনসহ তাঁর বেতন নির্ধারণ করা হবে, কিন্তু জুলাই ও আগষ্ট মাসের বেতনের সাথে তিনি প্রথম ৫০ দিনের বর্ধিত বেতনের সুবিধা প্রাপ্য হইবেন না।

উদাহরণ-২: কোন কর্মচারীর অনুকুলে ২ বছর ৩ মাস বিনা বেতনে ছুটি মঞ্জুর করা হলে প্রথম ২ বছর তাঁর বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি যোগ হবে না। তৃতীয় বছরের ০১ জুলাই তারিখে তাঁর বার্ষিক বেতন বৃদ্ধিসহ বেতন নির্ধারণ করা হবে, তবে প্রথম তিন মাস তিনি এই বেতন বৃদ্ধির সুবিধা প্রাপ্য হবেন না।

পরিপত্রটিতে স্বাক্ষর করেছেন উপ সচিব শরিফ মো: মাসুদ।

প্রশ্নোত্তর পর্ব:

  • প্রশ্ন: বিনা বেতনে ছুটিতে থাকলে ঐ বছর কি ইনক্রিমেন্ট পাবেন না?
  • উত্তর: না। পুরো এক বছর ছুটিতে থাকলে ঐ বছর পাবেন না। পরবর্তী বছর ইনক্রিমেন্ট পেয়ে বেতন নির্ধারণ করা হবে।
  • প্রশ্ন: যদি বছরে ১০ দিন বিনা বেতনে ছুটিতে থাকে তাহলে কি চলতি বছরে ইনক্রিমেন্ট পাবে না?
  • উত্তর: পাবে। ইনক্রিমেন্ট পেয়েই বেতন নির্ধারণ করা হবে। তবে জুলাই মাসের প্রথম ১০ দিন ইনক্রিমেন্ট সহ বেতন পাবেন না। ১১ তম দিন থেকে তার বেতন ইনক্রিমেন্ট সহ-ই নির্ধারিত হইবে।

এ সংক্রান্ত পরিপত্রের JPG কপি সংগ্রহে রাখতে পারেন: ডাউনলোড

Avatar

admin

আমি একজন সরকারি চাকরিজীবী। ভালবাসি চাকরি সংক্রান্ত বিধি বিধান জানতে ও অন্যকে জানাতে। আমার ব্লগের কোন কন্টেন্ট সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে বা জানাতে ইমেইল করতে পারেন alaminmia.tangail@gmail.com ঠিকানায়। ধন্যবাদ আপনাকে ওয়েবসাইটটি ভিজিট করার জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.